নিয়োগ দুর্নীতি মামলায় বিপাকে অভিষেক! সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশে ঘুম উড়ল নেতার

বাংলা হান্ট ডেস্কঃ সুপ্রিম কোর্টে (Supreme Court) জোর ধাক্কা অভিষেকের (Abhishek Banerjee)। প্রাথমিকে নিয়োগ দুর্নীতি মামলায় (Recruitment Scam Case) শীর্ষ আদালত গিয়েও স্বস্তি পেলেন না তৃণমূল কংগ্রেসের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। শুক্রবার বিচারপতি সঞ্জীব খান্নার বেঞ্চের সাফ নির্দেশ, শিক্ষক দুর্নীতি মামলায় সিবিআই–ইডি তার বিরুদ্ধে তদন্ত চালাতে পারবে।

   

নিয়োগ দুর্নীতি মামলায় কলকাতা হাইকোর্টের নির্দেশকে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে সুপ্রিম কোর্টে গিয়েছিলেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। তবে এদিন শীর্ষ আদালত জানিয়ে দিল বিচারপতি অমৃতা সিনহার একক বেঞ্চ ও বিচারপতি সৌমেন সেনের ডিভিশন বেঞ্চের নির্দেশে কোনও হস্তক্ষেপ করবে না সুপ্রিম কোর্ট।

তবে সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশ, ইডিকে আইন মেনে কাজ করতে হবে। আইনের বাইরে গিয়ে কোনও পদক্ষেপ নিতে পারবে না কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা। প্রসঙ্গত, নিয়োগ দুর্নীতি মামলার তদন্তে নেমে ইডির স্ক্যানারে আসে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের সংস্থা লিপস অ্যান্ড বাউন্ডস। সেই সূত্র ধরে তদন্ত শুরু করে ইডি।

আরও পড়ুন: জলের বোতল থেকে শাঁখা-পলা! এগুলি সঙ্গে থাকলে TET পরীক্ষা কেন্দ্রে প্রবেশ করতে পারবেন না, জানাল পর্ষদ

এরপর একে একে সংস্থার সাথে যুক্ত কোম্পানির সিইও অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়, অভিষেকের মা লতা বন্দ্যোপাধ্যায়, বাবা অমিত বন্দ্যোপাধ্যায়কে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ডেকে পাঠায় ইডি। নেতার অভিযোগ ছিল একক বেঞ্চ তদন্তে হস্তক্ষেপ করছে। তার মা, বাবাকেও এই মামলায় জড়িয়ে ফেলা হচ্ছে। এরপরই বিচারপতি অমৃতা সিনহার সিঙ্গেল বেঞ্চের নির্দেশকে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে ডিভিশন বিচারপতি সৌমেন সেনের বেঞ্চে যান অভিষেক।

abhishek banerjee

তবে বিচারপতি সিনহার নির্দেশে হস্তক্ষেপ করেনি বিচারপতি সেনের বেঞ্চ। তবে তদন্তকারী সংস্থাকে ডিসেম্বরের মধ্যে তদন্ত শেষ করতে হবে বলে নির্দেশ দেওয়া হয়। এরপরই সুপ্রিম কোর্টে যান অভিষেক। তবে সেখানেও মিললো না সুরাহা।