এবার বাংলাদেশেও প্রধান প্রতিপক্ষ দল তৃণমূল! ভোট ময়দানে নেমে বড় ঘোষণা মহাসচিবের

   

বাংলা হান্ট ডেস্ক : বাংলাদেশের দ্বাদশ জাতীয় নির্বাচনে (Bangladesh Genaral Election) অংশ নেবে তৃণমূল বিএনপি (TMC BNP)। দেশের প্রধান বিরোধী দল থেকে বেরিয়ে আসা একাধিক তাবড় তাবড় নেতা যোগ দিয়েছে এই দলে। আর এবার সেখানের সব কটি আসনেই লড়াই করতে তারা প্রস্তুত বলে জানিয়েন তৃণমূল বিএনপির মহাসচিব। অর্থাৎ জাতীয় সংসদে নির্বাচনে ৩০০ আসনে প্রার্থী দেবে তারা।

people gather at the suhrawardy udyan for the maiden rally of opposition alliance called jatiya oikyafront in dhaka bangladesh on november 06 2018 image reuters

সব আসনেই লড়াই

এইদিন দলের মহাসচিব তৈমুর আলম খন্দেকর তার বক্তব্যে এটা পরিস্কার জানিয়ে দিয়েছেন যে, এই দল সরকার গড়তে না পারলেও দেশের প্রধান বিরোধী দল হিসেবে উঠে আসবে তৃণমূল বিএনপি। মহাসচিবের কথায়, ‘অনেক দল আমার সঙ্গে যোগাযাগ করছে। জোটবদ্ধভাবে আমার ৩০০ আসনে লড়াই করবে। শক্তিশালী জোট তৈরি করে আমরা সরকার গড়ব। আর তা যদি না পারি তাহলে আমরাই হব প্রধান বিরোধী দল।’

আরও পড়ুন : ‘এভাবে ধর্মীয় স্থান তৈরী হয় না, ওটা কালচারাল সেন্টার’ দিঘার জগন্নাথ মন্দির নিয়ে তোপ শুভেন্দুর

এখানেই থেমে থাকেননি তিনি। মহাসচিব আরও বলেন, ‘আমরা সুষ্ঠু রাজনীতিতে বিশ্বাস করি। হত্যা এবং রাজনীতিতে হিংসাকে আমরা সমর্থন করি না। তৃণমূল বিএনপি মানে সাধারণ মানুষের বিএনপি।আমরা মানুষের জন্য কাজ করি।’ ইতিমধ্যেই শুরু হয়ে গিয়েছে ভোটের জন্য মনোনয়ন পত্র গ্রহণ। সূত্র বলছে আগামী ২৩ নভেম্বর মনোনয়ন চূড়ান্ত করার দিন ধার্য করা হয়েছে।

আরও পড়ুন : এক দশক ধরে থমকে রয়েছে বাংলার এই রেলপথের কাজ! আশায় বুক বাঁধছে মানুষ, ফের শুরু হল তৎপরতা

অন্যদিকে দলের চেয়ারপার্সন শামসের মুবিন চৌধুরী জানিয়েছেন, এবার নির্বাচন হবে সম্পূর্ণ সাধারণ মানুষের উপর নির্ভর করে‌। তারাই দেশের ভবিষ্যৎ ঠিক করবে, আন্তর্জাতিক কোনও মহল নয়। আরও শোনা যাচ্ছে, গত শনিবার থেকে মনোনয়নপত্র বিলি করা শুরু হয়েছে। রবিবার দুপুর পর্যন্ত প্রাপ্ত খবর, মোট ৬০টি মনোনয়ন পত্র বিলি হয়েছে। মনোনয়ন ফর্মের জন্য দাম ধার্য করা হয়েছে ৫ হাজার টাকা।

s2re5ui bangladesh polls 625x300 30 december 18

দলের প্রতিষ্ঠা

উল্লেখ্য, সাল ২০১৫ তে প্রতিষ্ঠা হয় তৃণমূল বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল ( Trinamool BNP) দলের। দলটির প্রতিষ্ঠা করেন, বাংলাদেশের প্রাক্তন মন্ত্রী, ব্যারিস্টার নাজমুল হুদা। বাংলাদেশের নির্বাচন কমিশন এই দলকে স্বীকৃতি এবং রেজিস্ট্রেশনও দিয়ে দিয়েছে। দলের প্রতীক চিহ্ন হিসেবে চূড়ান্ত করা হয়েছে সোনালী আঁশ।

Moumita Mondal
Moumita Mondal

মৌমিতা মণ্ডল, গ্র্যাজুয়েশনের পর শুরু নিয়মিত লেখালেখি। বিগত ৩ বছরেরও বেশি সময় ধরে লেখালেখির সাথে যুক্ত। প্রায় ২ বছর ধরে বাংলা হান্ট-এর কনটেন্ট রাইটার হিসেবে নিযুক্ত।

সম্পর্কিত খবর