‘মুসলিমকে হিন্দু বলে দাগিয়ে দেওয়া হয়েছিল’, ২৬/১১ মুম্বই হামলার ১৫ বছরে বিস্ফোরক ভেঙ্কটেশ প্রসাদ

বাংলা হান্ট ডেস্ক: মুম্বই হামলার (Mumbai Attack) ১৫ বছর পার। আজ সেই অভিশপ্ত ২৬/১১। মুম্বইয়ের তাজ হোটেল (Taj Hotel), লিওপোল্ড ক্যাফে, ছত্রপতি শিবাজি মহারাজ টার্মিনাস, ওবেরয় ট্রাইডেন্ট, কামা হাসপাতাল, নরিমান হাউস, মেট্রো সিনেমা এবং সেন্ট জেভিয়ার্স কলেজকে লক্ষ্যবস্তু করেছিল পাকিস্তানি জঙ্গিরা। সেই হামলায় ১৬৫ জন নিরীহ মানুষের প্রাণ যায়। অন্যদিকে, পুলিশের গুলিতে ৯ জন সন্ত্রাসী খতম হয়। এই হামলা ভারতের ইতিহাসে একটা ‘কালো দিন’ হিসেবেই বর্ণিত হয়ে থাকবে। বাণিজ্যনগরীতে এই ধরনের হামলায় কেঁপে উঠেছিল গোটা দেশ। আর সেই ঘটনার ১৫ বছর পূর্তিতে স্মরণ করলেন প্রাক্তন ক্রিকেটার ভেঙ্কটেশ প্রসাদ (Venkatesh Prasad)।

mumbai attack

   

সেই দিন এক সাহসী পুলিশ কনস্টেবল তুকারাম ওম্বলে (Tukaram Omble) নিজের প্রাণ বলি দিয়েছিলেন। সেই প্রসঙ্গে প্রাক্তন ক্রিকেটার জানান, ‘আপনারা নিশ্চয়ই দেখেছেন একজন ৫৫ বছর বয়সি এএসআই ওম্বলে কীভাবে আজমল কাসাবের (Ajmal Kasab) সঙ্গে মুখোমুখি হয়েছিলেন। ১৫ বছর আগের সেই সন্ত্রাসী হামলাকে ‘হিন্দু সন্ত্রাস’ হিসেবে প্রমাণ করা হয়েছিল। যদি না তুকারাম ওম্বলে থাকতেন, তাহলে আজ আমরা এখানে থাকতাম না। নিজের প্রাণ বলি দিয়ে অনেকের জীবন বাঁচিয়েছিলেন তিনি।’

আরও পড়ুন: তৈরি হও! চীনের নতুন মহামারি নিয়ে ভারতে জারি হাই অ্যালার্ট, রাজ্যগুলিকে নির্দেশ কেন্দ্রের

ভেঙ্কটেশ প্রসাদ আরও জানান, ‘পাকিস্তানের (Pakistan) গোয়েন্দা সংস্থা আইএসআই এবং সন্ত্রাসী সংগঠন লস্কর-ই-তৈয়বা আজমলকে সমীর চৌধুরী বানিয়ে দিয়েছিল। যাতে গোটা বিশ্ব হিন্দুদের উপর আঙুল তুলতে পারে। কিন্তু কাসাবের গ্রেফতারির পরই সবটা জানা গিয়েছিল। পর্দাফাঁস হয়েছিল পাকিস্তানের।’ উল্লেখ্য, মুম্বইয়ে প্রবেশকারী দশ সন্ত্রাসীর হাতের কব্জিতে জাফরান এবং লাল রঙের সুতো বাঁধা ছিল, যাতে তাদেরকে হিন্দু বলে মনে হয়। আর সেই নিয়েই এবার ২৬/১১ সন্ত্রাসী হামলার স্মৃতি ফিরিয়ে সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে গর্জে উঠলেন প্রাক্তন ক্রিকেটার।

সম্পর্কিত খবর