মুখ পুড়ল রাজ্যের! সন্দেশখালি ঘটনায় ED-র পাশে হাইকোর্ট, এল বড় বয়ান

বাংলা হান্ট ডেস্ক : সন্দেশখালি (Sandeshkhali) মামলায় বড় বয়ান দিল কলকাতা হাইকোর্ট (Calcutta High Court)। ইডি (Enforcement Directorate) আধিকারিকদের বিরুদ্ধে আপাতত কোনও পদক্ষেপ নেওয়া যাবেনা। সন্দেশখালির ঘটনায় মৌখিক নির্দেশ বিচারপতি জয় সেনগুপ্তের। অর্থাৎ আগামী সোমবার পর্যন্ত কোনও ইডি আধিকারিককে তলব, জিজ্ঞাসাবাদ করা যাবে না। এমনই নির্দেশ দিল কলকাতা হাইকোর্ট।

   

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, গত ৫ জানুয়ারি সন্দেশখালির সরবেড়িয়াতে তৃণমূল নেতা শেখ শাহজাহানের বাড়িতে রেশন দুর্নীতি কাণ্ডের তদন্তে গিয়ে আক্রান্ত হন ইডি অফিসাররা। ৬ দিন পেরিয়ে গেলেও এখনও ধরা ছোঁয়ার বাইরে শেখ শাহজাহান। বর্ডার এলাকায় লুকআউট সার্কুলার জারি করা হলেও এখনও তার টিকিরও দেখা মেলেনি। তিনি এখন কোথায় রয়েছেন তার সন্ধান করছে তদন্তকারী সংস্থা।

গত ৫ তারিখ, তদন্তের স্বার্থে শেখ শাহজাহানের বাড়ি পৌঁছেছিলেন ইডি কর্তাদের একটি দল। তৃণমূল নেতার বাড়িতে ঢুকতে চাইলে গ্রামবাসীদের একাংশ ঝাঁপিয়ে পড়ে তাদের উপর। ইঁট, পাথর, লাঠি নিয়ে মাথা ফাটিয়ে দেওয়া হয় তিন ইডি অফিসারের। এই ঘটনায় যখন উত্তপ্ত রাজ্য রাজনীতি তখনই ইডি অফিসারদের বিরুদ্ধেই ন্যাজাট থানায় এফআইআর দায়ের করেছিলেন শাহজাহানের বাড়ির কেয়ারটেকার।

আরও পড়ুন : নতুন বছরেও বজায় রইল জি বাংলার দাপট! বেঙ্গল টপার কে? রইল ওলটপালট করা TRP তালিকা

তিনি দাবি করেন, ইডি অফিসাররা নাকি ওয়ারেন্ট ছাড়াই বাড়িতে চড়াও হয়েছিল বলেই বাধা দেওয়া হয়েছিল। যদিও ইডির দাবি, ওয়ারেন্ট নিয়েই তারা শেখ শাহজাহানের বাড়ি গেছিলেন। এরপরই নাকি ইডির বিরুদ্ধে একাধিক জামিন অযোগ্য ধারায় মামলা রুজু করেছে পুলিশ। ওদিকে রাজ্য পুলিশের অসহযোগীতার কথা উল্লেখ করে হাইকোর্টের দ্বারস্থ হয় ইডি। আজকেই সেই মামলার শুনানি হওয়ার কথা ছিল।

আরও পড়ুন : দীর্ঘ তিন দশক ধরে নীরব, রাম মন্দির উদ্বোধনের দিন রামের নামেই মৌনব্রত ভাঙবেন ‘মৌনী মাতা’

তবে এক প্রবীণ আইনজীবী মারা যাওয়ার কারণে সেই মামলাটি আপাতত স্থগিত রয়েছে। তবে বিচারপতি জয় সেনগুপ্ত মৌখিক নির্দেশে বলেন যে, আগামী সোমবার পর্যন্ত ইডি অফিসারদের বিরুদ্ধে কোনও পদক্ষেপ নিতে পারবেনা পুলিশ। এছাড়াও বিচারপতি রাজশেখর মান্থার এজলাসে আরও একটি মামলা দায়ের করেছিল কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা। তাদের বিরুদ্ধে যে এফআইআর দায়ের করা হয়েছে সেটি খারিজ করার আবেদন জানিয়েই এই মামলা করে ইডি। আজ সেটিরও শুনানি হওয়ার কথা রয়েছে বলে খবর।

সম্পর্কিত খবর