আর চলবে না টিটিদের “দাদাগিরি”! যাত্রীদের সঠিক সিট দিতে নজর রাখবে AI, বড় পদক্ষেপের পথে রেল

বাংলা হান্ট ডেস্ক: বর্তমান সময়ে দেশজুড়ে (India) ক্রমশ বৃদ্ধি পাচ্ছে রেলের (Indian Railways) যাত্রীসংখ্যা। এমতাবস্থায়, ক্রমবর্ধমান যাত্রীদের কথা মাথায় রেখে এবং তাঁদের সুষ্ঠুভাবে পরিষেবা প্রদানের লক্ষ্যে একের পর এক গুরুত্বপূর্ণ পদক্ষেপ গ্রহণ করা হচ্ছে রেলের তরফে। যার জেরে প্রত্যক্ষভাবে লাভবান হচ্ছেন যাত্রীরা। পাশাপাশি, রেলের তরফের বিভিন্ন পরীক্ষা-নিরীক্ষাও করা হচ্ছে। ঠিক এই আবহেই এবার একটি বড় আপডেট সামনে এসেছে।

   

এই প্রসঙ্গে প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ী জানা গিয়েছে যে, এবার রেল আরএসি এবং ওয়েটিং টিকিটের যাত্রীদের চলন্ত ট্রেনে বার্থ দেওয়ার জন্য AI (Artificial Intelligence) প্রযুক্তি ব্যবহার করতে চলেছে। যার ফলে টিটি নিজের ইচ্ছেমতো আর বার্থ দিতে পারবেন না। এমনকি, অর্থের বিনিময়েও তিনি এটি করতে পারবেন না।

Artificial Intelligence will keep an eye on giving passengers the right seats

এই প্রসঙ্গে জানিয়ে রাখি যে, বর্তমানে চার্ট তৈরির পরে, টিকিট ক্যান্সেল করা বা কনফার্ম টিকিটের পরেও ট্রেনে সফর না করা যাত্রীদের তথ্য টিটির কাছে থাকে। ওই বার্থগুলিকে টিটি ওয়েটিং বা আরএসির সঠিক ক্রম অনুযায়ী দিচ্ছেন কিনা তা রেল জানতে পারে না। উদাহরণস্বরূপ, যদি কোনো কোচে পাঁচজন যাত্রী কনফার্ম টিকিট পেয়েও সফর না করেন তেমন পরিস্থিতিতে, টিটি আরএসি-র প্রথম এক বা দুইকে বার্থ দেওয়ার পরিবর্তে চাইলেই তিন থেকে সাত আরএসি নম্বরদের নিজের ইচ্ছেমতো বার্থ দিতে পারেন। কারণ, যাত্রীদের কাছে এই খালি বার্থ সম্পর্কে কোনো তথ্য থাকে না।

আরও পড়ুন: শুধুমাত্র ইন্টারভিউ দিয়েই বন্ধন ব্যাঙ্কে চাকরির সুযোগ! জারি হল বিজ্ঞপ্তি, এভাবে করুন আবেদন

AI প্রযুক্তি ব্যবহার করা হবে: রেল মন্ত্রকের মতে, এই ধরণের ক্ষেত্রে যাত্রীদের স্বস্তি দিতে আর্টিফিসিয়াল ইন্টেলিজেন্স (AI) ব্যবহার করার প্রস্তুতি নেওয়া হচ্ছে। যার মাধ্যমে খালি বার্থ বা আসনগুলি শুধুমাত্র সঠিক ক্রম অনুযায়ী ওয়েটিং এবং আরএসি যাত্রীদের দেওয়া যাবে। চলন্ত ট্রেনেই ওই যাত্রীদের কাছে বার্তা পৌঁছে দেওয়া যাবে। যাতে তাঁরা সরাসরি টিটির সাথে দেখা করে বার্থ নিতে পারেন। মন্ত্রক সূত্রে জানা গেছে, ইতিমধ্যেই AI ব্যবহার নিয়ে বৈঠক হয়েছে। দ্রুত এই প্রক্রিয়া শুরু হবে।

আরও পড়ুন: নতুন বছরে বড় “উপহার” পেল এই দেশ! খোঁজ মিলল বিশাল সোনার ভাণ্ডারের

বছরে ৮০০ কোটি যাত্রী যাতায়াত করেন: প্রসঙ্গত উল্লেখ্য যে, বর্তমানে দেশে বছরে ৮০০ কোটি যাত্রী ট্রেনে যাতায়াত করছেন। এর জন্য ১০,৭৪৮ টি ট্রেন পরিচালনা করা হচ্ছে। এই ৮০০ কোটি যাত্রীর মধ্যে সবাই কনফার্ম টিকিট পান না। যার ফলে অনেককেই ওয়েটিং বা আরএসি টিকিটে ভ্রমণ করতে হয়, যা বেশ অসুবিধাজনক। এমতাবস্থায়, এই নতুন পদক্ষেপের ফলে তাঁরা স্বস্তি পেতে পারেন।