ভারতীয় কুস্তিগীরদের উপর নিষেধাজ্ঞা! মোদী সরকারকেই এই পরিস্থিতির জন্য দায়ী করছেন মমতা ব্যানার্জি

   

বাংলা হান্ট নিউজ ডেস্ক: চরম বিপাকে ভারতের কুস্তিগীররা। বিশ্ব কুস্তি সংস্থার একটা সিদ্ধান্তে চরম বিপাকে পড়লেন তারা। সঠিক সময়ে নির্বাচন না করার কারণে ইন্ডিয়ান রেসলিং ফেডারেশনকে নির্বাসিত করেছে বিশ্ব কুস্তির সর্বোচ্চ নিয়ামক সংস্থা। ফলে এখন ভবিষ্যতের অন্ধকার দেখছেন ভারতের নামজাদা থেকে উঠতি কুস্তিগীর, প্রত্যেকে।

অর্থাৎ পরিস্থিতি যা দাঁড়াচ্ছে সেই অনুযায়ী আসন্ন অলিম্পিক বা অন্য বড় টুর্নামেন্টগুলিতে অংশগ্রহণ করতে পারবে না ভারতের এই কুস্তিগীররা। অলিম্পিকের জন্য যদিও এখনো সময় বাকি রয়েছে কিন্তু পরের মাসেই রয়েছে বিশ্ব কুস্তি চ্যাম্পিয়নশিপ। কিন্তু এখন এই নির্বাসন শুনে মাথায় হাত পড়ে গিয়েছে কুস্তিগীরদের।

এপ্রিল মাসের শেষ থেকে বিশ্ব কুস্তি সংস্থার নিয়ম অনুযায়ী ভারতের কুস্তি ফেডারেশন একটি নির্বাচনের প্রস্তুতি নিয়েছিল কিন্তু তা সম্পূর্ণ হয়নি। যদিও বিশ্ব কুস্তির সর্বোচ্চ নিয়ামক সংস্থা আগেই সতর্ক করেছিল ভারতকে যে নির্বাচন না হলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে। বুধবার রাতেই এই বিশেষ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় সেই কথা অনুযায়ী।

আরও পড়ুন: একটা ডার্বি জিতে লাফানোর কিছু নেই! মোহনবাগানের পক্ষ নিয়ে ইস্টবেঙ্গল কর্তাকে ধমক মমতার

ভারতীয় কুস্তি সংস্থার দায়িত্বে রয়েছে অ্যাড-হক প্যানেল। প্রাক্তন সভাপতি ব্রিজভূষণ শরন সিংহ, যার ওপর মহিলা কুস্তিগিরদের শারীরিক নির্যাতন করার অভিযোগ রয়েছে এবং সেই ভিত্তিতেই আগের কমিটি ভেঙে দেওয়া হয়েছিল। এরপর নানান আইনি জটিলতার কারণে নির্বাচন বারবার পিছিয়েছে। নানান অভিযোগের ভিত্তিতে ১২ ই আগস্ট নির্বাচন হওয়ার কথা থাকলেও সেটি পিছিয়ে যায়। যার ফল এখন ভুগতে হচ্ছে কুস্তিগীরদের।

আরও পড়ুন: জাতীয় সঙ্গীতের আদলে রাজ্য সঙ্গীত! পশ্চিমবঙ্গ দিবসের পর আগামী বছর নতুন উপহার পাচ্ছে রাজ্যবাসী

এই বিষয় নিয়ে মুখ খুলেছেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জিও। তিনি জানিয়েছেন এই ঘটনার কথা শুনে তিনি অবাক এবং লজ্জিত। কেন্দ্রীয় সরকারের নির্মম পুরুষতান্ত্রিক মনোভাবই এই অবস্থার জন্য আজ দায়ী বলে মনে করছেন তিনি। গোটা দেশের মানুষদের তাদের বিরুদ্ধে গর্জে উঠা উচিত বলে মন্তব্য করেছেন তিনি।

 

Avatar
Reetabrata Deb

সম্পর্কিত খবর